Templates by BIGtheme NET
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ

‘বাংলাদেশ এখন একটি উন্নয়নশীল দেশ’

আহমাদুল কবির, মালয়েশিয়া প্রতিনিধি
মালয়েশিয়ার পেরাক প্রদেশের বাণিজ্যমন্ত্রী ও ইনভেস্টমেন্ট অ্যান্ড করিডোর ডেভেলপমেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান দাতু সেরি হাজি মোহাম্মদ নিজার বিন জামালুদ্দিন বলেছেন, ‘বাংলাদেশ এখন একটি উন্নয়নশীল দেশ। যা আধুনিকায়নে এগিয়ে যাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) পেরাকের ডাব্লিউ আইইএল পাচঁ তারকা হোটেলের হলরুমে বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে’ রোড শো অ্যান্ড ব্র্যান্ডিং বাংলাদেশ’ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব বলেন। সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশের হাইকমিশনার মহ. শহীদুল ইসলাম।

প্রধান অতিথি দাতু সেরি হাজী মোহাম্মদ নিজার বিন জামালুদ্দিন বাংলাদেশের উন্নয়নের ভূয়সী প্রশংসা করে আরও বলেন, ’বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ আজ পিছিয়ে নেই। বিশ্বদরবারে উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছে।‘ তিনি মালয়েশিয়ার অগ্রগতিতে, বিশেষ করে নির্মাণশিল্প ও পাম চাষে বাংলাদেশের শ্রমিকদের অবদানের কথা কৃতজ্ঞতার সঙ্গে স্মরণ করেন।

মোহাম্মদ নিজার বলেন, ‘মালয়েশিয়ানদের জন্য বাংলাদেশে প্রচুর বিনিয়োগের সুযোগ রয়েছে। তারা বিশ্বের পোশাক ও পোশাকগুলোর বৃহত্তম রফতানিকারক দেশ। তাদের সিরামিক সেক্টর ৮৯টি দেশে রফতানি করছে। ব্যবসায়ের সুযোগসহ অন্যান্য সেক্টরগুলিতে নির্মাণ, ইলেকট্রনিক এবং ফার্মাসিউটিকাল ও রয়েছে।’

হাইকমিশনার মহ. শহীদুল ইসলাম বক্তব্যে বলেন, ‘বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ ২০২১ সালের মধ্যে মধ্যম আয়ের দেশ এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত হওয়ার লক্ষ্য নিয়ে দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলছে। ব্যবসা-বাণিজ্য ও বিনিয়োগে এশিয়ার সেরা গন্তব্য হলো বাংলাদেশ। বাংলাদেশে ব্যবসা বাণিজ্যের সমৃদ্ধ ইতিহাস উপস্থিত ব্যবসায়ী নেতাদের কাছে তুলে ধরেন হাইকমিশনার মহ. শহীদুল ইসলাম।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথিকে ক্রেস্ট প্রদান করেন হাইকমিশনার মহ. শহীদুল ইসলাম। উপস্থিত ছিলেন চাইনিজ চেম্বার অব কমার্সের দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রেসিডেন্ট দাতো ডেসমন্ড, পেরাক মালয়েশিয়া চেম্বার অব কমার্সের প্রেসিডেন্ট, দাতু হাজী মোহাম্মদ মুহিউদ্দিন হাজী আব্দুল্লাহ, পেরাক চাইনিজ চেম্বার অব কমার্সের ভাইস প্রেসিডেন্ট দাতো এজি ইয়ক জি, ইন্টার ন্যাশনাল ট্রেড অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি কমিটির প্রধান মিস জুই ইন ইন।

এ ছাড়া বাংলাদেশ দূতাবাসের ডিফেন্স উইং প্রধান এয়ার কমডোর মো. হুমায়ূন কবির, প্রথম সচিব (বাণিজ্য) মো. রাজিবুল আহসান, শ্রম শাখার প্রথম সচিব মো. হেদায়েতুল ইসলাম মন্ডল, শ্রম শাখার ২য় সচিব ফরিদ আহমদ, স্থানীয় ব্যবসায়ী নেতারা, শিল্প মালিক, নিয়োগকর্তা ইপু পেরাকের বিভিন্ন ইলেক্ট্রনিক-প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকসহ আড়াই শতাধিক ব্যবসায়ী নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

‘রোড শো ব্রান্ডিং বাংলাদেশ’ অনুষ্ঠান আয়োজনের বিষয়ে জানতে চাইলে হাইকমিশনের প্রথম সচিব (বাণিজ্যিক) মো. রাজিবুল আহসান জানান, বাংলাদেশের বাণিজ্য ও বিনিয়োগের সম্ভাবনা মালয়েশিয়ার ব্যবসায়ী নেতাদের নিকট তুলে ধরার জন্য বাংলাদেশ হাইকমিশনের উদ্যোগে মালয়েশিয়ার বিভিন্ন প্রদেশে নিয়মিত এ ধরনের অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়।

রোড শো ব্রান্ডিং বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়ার অর্থনৈতিক সম্পর্ক আগামীতে আরও অধিকতর সুদৃঢ় হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।